কাউন্সিলর প্রার্থীর স্ত্রীকে পে’টালেন আরেক কাউন্সিলর প্রার্থী!

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ১২নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থীর স্ত্রী ও তার কর্মী-সমর্থকদের মা’রধরের অভিযোগ উঠেছে আরেক

কাউন্সিলর প্রার্থীর বিরুদ্ধে। দুপুর আড়াইটায় বার একাডেমি স্কুলকেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। মারধরে আহত লাটিম প্রতীকের

কাউন্সিলর প্রার্থী সওকত হাসেম শুকুরের স্ত্রী দিপা হাসেম অভিযোগ করে বলেন, আড়াইটায় বার একাডেমি স্কুলকেন্দ্রে

ভোট দিতে আসি। এ সময় ঘুড়ি প্রতীকের কাউন্সিলর প্রার্থী সেলিম খান ও তার ভাই হেদায়েতসহ তাদের লোকজন আমাকে

ভোট দিতে বাধা দেন। এতে আমি কেন্দ্রের বাহিরে বের হয়ে এলে তারাও বাহিরে এসে আমাকে ঘিরে ধরে। একপর্যায়ে আমাকে

মা’রধর করতে থাকেন। এ সময় লাটিমের কর্মী-সমর্থকরা এগিয়ে এলে তাদেরও মারধর করা হয়। ওই সময় সেলিম ও তার ভাই আমার গলা থেকে স্বর্ণের চেইন ও মোবাইল ছিনিয়ে নেন। এ বিষয়ে ঘুড়ি প্রতীকের প্রার্থী সেলিম খান বলেন,

তারা নির্বাচনে হেরে যাওয়ার সম্ভাবনায় ইচ্ছে করে ঝামেলা পাকাচ্ছেন। তাদের অভিযোগ সত্য নয়। বার একাডেমি কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন,

সামান্য সমস্যা হয়েছিল কাউন্সিলর প্রার্থীদের মধ্যে। তাৎক্ষণিক আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করা হয়েছে। ভোটগ্রহণে কোনো সমস্যা হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.