অবশেষে খোঁজ মিললো রানু মন্ডলের মায়ের, অসাধারণ সুরে গাইলেন তেরি মেরি কাহিনী, তুমুল ভাইরাল ভিডিও

আজকের এই বিজ্ঞান এর বাড়বাড়ন্ত এর দিনে মানুষ তার বিনোদন সহজেই পেয়ে যাচ্ছে। খেলাধুলা গান-বাজনা থেকে

শুরু করে সবকিছুই এখন প্রায় হাতের মুঠোয়। প্রযুক্তির ব্যবহার এতই বেড়ে গেছে যে মানুষ যদি কোন অচেনা স্থানে যায় তাহলে সে

স্মার্টফোনের মাধ্যমে সঠিক স্থানে চলে আসতে পারবো। প্রযুক্তির জন্য এখন বিনোদন হাতের মুঠোতে। বিজ্ঞানের অন্যতম চমৎকার কারি

অবদান সোশ্যাল মিডিয়া সমস্ত বিনোদনকে থেকে হাতের মুঠোয় এনে দিয়েছে। এখন মানুষের টিভি বা নিউজ পেপারের ওপর দেশ বিদেশের খবরা খবর ও

নানান বিনোদনমূলক খবর জানতে ময়না সোশ্যাল মিডিয়া সব কিছু্র সুবিধা করে দিয়েছে। এখন মানুষ খেলাধুলার জন্য টিভির পর্দায় চোখ রাখেনা।স্মার্টফোনের মাধ্যমে খেলাধুলো যেকোনো স্থানে

বসে উপভোগ করা যায় এখন। সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মনোরঞ্জন এখন হাতের মুঠোয় প্রতিটা মানুষের। ব্যবসার প্রসার ঘটানোর জন্য লোকজন এই মাধ্যমটি ব্যবহার করে থাকে। অনেকেই নিজেদের

ব্যবসা ডিজিটাল ব্যবসায় পরিণত করেছে এই মাধ্যম দ্বারা। সামাজিক গণমাধ্যমে আমরা অনেকে টাকা আয় করেন। এই মাধ্যমে বহু লোকজনের উপার্জনের পথ গড়ে উঠেছে। এই মাধ্যমে অনেক গরিব ছেলে মেয়ের প্রতিভা ফুটে উঠেছে। আমার এই মাধ্যম দাঁড়া অনেকে রাতারাতি সুপারস্টার হয়ে গেছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় হচ্ছে এখন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি প্ল্যাটফর্ম। বিভিন্ন ধরনের মানুষের হাস্যকর ভিডিও মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে আমার তেমনি অনেক দুঃখজনক ভিডিও ভাইরাল হতে দেখা গিয়েছে। একটি বৃদ্ধার ভিডিও ভাইরাল হয়েছে এই মাধ্যমে সম্প্রতি। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে যে একটি বৃদ্ধা মানুষ কানে হেডফোন এর বদলে দুটি স্টিলের বাটি লাগিয়ে রেখেছে। মাইক্রোফোনের জায়গায় একটি স্টিলের গ্লাস লাগিয়ে রেখেছে একটি লাঠির উপর। তেরি মেরি কাহানি অর্থাৎ রানু মন্ডল এর গান বৃদ্ধা টি গাইছে।

একজন ওই দৃশ্য ক্যামেরাবন্দি করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে দিয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়াতে ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হয়েছে বৃদ্ধার ভিডিওটি । ওই ভিডিও দেখে সোশ্যাল মিডিয়ার লোকজনরা খুবই মজা পেয়েছে। অনেকে তাদের হাসি থামিয়ে রাখতে পারিনি। তারা কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে তারা তাদের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে।

ভিডিও লিংক

পারলে আপনিও এক ঝলক ওই ভিডিওটি দেখে নিতে পারেন।এই ভিডিওটি SAYED VAIA ইউটিউব চ্যানেলে এক বছর আগে আপলোড করা রয়েছে। ভিডিওতে শার্ট লাখেরও বেশি ভিউ পড়েছে। দেড় লক্ষ মানুষ জন ভিডিওতে রিঅ্যাক্ট দিয়েছে। অনেকেই এই ভিডিও শেয়ার করেছে সোশ্যাল মিডিয়ায় যাতে অন্যরা এই ভিডিও দেখতে বঞ্চিত না হয়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*