বাংলাদেশে দুই জনের দেহে ‘ওমিক্রন’ শনাক্ত

বাংলাদেশে দুইজনের শরীরে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও

পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক। শনিবার (১১ ডিসেম্বর) দুপুর ২টায় রাজধানীর শ্যামলীর শিশু হাসাপাতালে

ভিটামিন এ টিকা ক্যাম্পেইন উদ্বোধন উপলক্ষে বক্তব্যকালে এ কথা জিানান তিনি। ওমিক্রনে আক্রান্ত দুইজন বাংলাদেশ

জাতীয় নারী ক্রিকেট দলের ক্রিকেটার বলে জানা গেছে। বিশ্বকাপ বাছাই শেষে জিম্বাবুয়ে থেকে ফেরা বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের দুই

সদস্য করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। তাদের শরীরেই ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়েছে। গত ১ ডিসেম্বর আফ্রিকার দেশ জিম্বাবুয়ে থেকে

দেশে ফেরেন নারী ক্রিকেট দল। পরে তাঁদের প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। সেখানেই

তিন দফায় ১,৩ ও ৫ ডিসেম্বর আরটি-পিসিআরে সবার নমুনা পরীক্ষা করা হয়। শেষ পরীক্ষায় ২ জনের ফলাফল পজিটিভ আসে। এরপর

তাদেরকে আইসোলেশনে রাখা হয়। সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকায় করোনার নতুন ধরন ওমরানের প্রকোপ দেখা দেওয়ার পর ছড়িয়ে পড়ে ওই অঞ্চলের ছয় দেশে। যাদের সঙ্গে আপাতত সব ধরনের যোগাযোগ বন্ধ রেখেছে বাংলাদেশসহ বিশ্বের অন্যান্য দেশগুলো।

ধরনটি এখন পর্যন্ত ইউরোপ, আমেরিকা থেকে শুরু এশিয়ার ভারতসহ অন্তত ৪০টি দেশে শনাক্ত হয়েছে। এমতাবস্থায় জিম্বাবুয়ে থেকে আসা নারী ক্রিকেটারদের মাধ্যমে দেশে ওমিক্রন প্রবেশের শঙ্কা তৈরি হয়।

এর আগে করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ায় বাতিল হয়ে যায় জিম্বাবুয়েতে চলতে থাকা বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচগুলো। এক ম্যাচ বাকি থাকতেই পরদিনই দেশের উদ্দেশে রওনা দিয়েছিল নিগার সুলতানরা দল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.